গোলাপগঞ্জের চন্দরপুরে কালবৈশাখী ঝড়ের তাণ্ডবে ২টি মুদি দোকানের ৩ লক্ষাধিক টাকার ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে।

বৃহস্পতিবার দিবাগত রাত দেড়টার দিকে আঘাত হানা কালবৈশাখী তুফানে চন্দরপুরের চৌমুহনীস্থ আপ্তাব আলী মার্কেটের রিফাত ভেরাইটিজ স্টোর ও ফাহমিদা স্টোরের চাল উড়িয়ে নিলে এ ক্ষয়ক্ষতি হয়।

এসময় রিফাত ভেরাইটিজ স্টোরের ভিতরে থাকা ৩ লক্ষাধিক টাকার মালামাল পুরো ভিজে নষ্ট হয়ে যায় এবং ফাহমিদা স্টোরের ৫/৬ হাজার টাকার মালামাল ভিজে ক্ষতিগ্রস্থ হয়।

রিফাত ভেরাইটিজ স্টোরের মালিক নুরুল হুদা এবং ফাহমিদা স্টোরের মালিক একরাম আলী এ তথ্য জানিয়েছেন।

আজ (শুক্রবার) সরেজমিনে গিয়ে দেখা যায় কালবৈশাখী ঝড়ে দোকানগুলোর টিন উড়িয়ে নিয়ে গেলে এগুলোর ভিতরের সমস্ত মালামাল ভিজে নষ্ট হয়ে যায়। এসময় দোকানগুলোর মেরামতকাজ চলতেও দেখা যায়।

রিফাত ভেরাইটিজ স্টোরের প্রোপ্রাইটর নুরুল হুদা বলেন, বর্তমান করোনা পরিস্থিতিতে আমরা ব্যবসায়ীরা এমনিতেই ক্ষতিগ্রস্থ। তারমধ্যেই কালবৈশাখী তাণ্ডবে সবকিছু একেবারে শেষ করে দিল।

রিফাত ভেরাইটিজ স্টোরের মেরামতকাজ চলছে
শেয়ার করুনঃ