গোলাপগঞ্জের বুধবারীবাজার ইউনিয়নের কালিয়াডহরে এক বুদ্ধি প্রতিবন্ধী কিশোরীকে ধর্ষণের অভিযোগ উঠেছে।

এঘটনায় ভিকটিমের মা বাদী হয়ে একই গ্রামের (পার্শ্ববর্তী ঘর) আব্দুল হাফিজের ছেলে মনসুর আহমদ (২৫) কে অভিযুক্ত করে গোলাপগঞ্জ মডেল থানায় মামলা (নং-০২/০৩.০৫.২০২০) দায়ের করেছেন।

অভিযোগ সূত্রে জানা যায়, ২৮এপ্রিল (মঙ্গলবার) সন্ধ্যা ৭টায় বুদ্ধি প্রতিবন্ধি কিশোরী বসতঘরের দ্বিতীয় তলায় যাওয়ার সময় পূর্ব থেকে ওঁৎ পেতে থাকা মনসুর সিঁড়ির মেঝেতে জোরপূর্বক ধর্ষণ করে পালিয়ে যায়। পরে প্রতিবন্ধী ঐ কিশোরী কান্না করতে করতে ঘরে ঢুকলে মা কান্নার কারণ জিজ্ঞাসা করলে সে ঘটনার বর্ণনা দেয়।
তাৎক্ষনিক ভিকটিমের মা অভিযুক্তের পরিবারের লোকজনের কাছে ঘটনার কথা জানালে তারা এ বিষয়ে কর্ণপাত করেন নি বলে অভিযোগে উল্লেখ করা হয়।

পরে ওই কিশোরীকে সিলেট এমএজি ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ওসিসিতে ভর্তি করে চিকিৎসা প্রদান করা হয়।

বুদ্ধি প্রতিবন্ধী কিশোরীর মা ঘটনায় জড়িত ব্যক্তির দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি জানান। তিনি জানান ৩বছর আগেও ঐ কিশোরীর সাথে এরকম ঘটনা ঘটে। প্রতিবেশী আব্দুল আহাদ এর ছেলে তারেক আহমদ (১৯) তখন জোরপূর্বক ধর্ষণ করে। তখন কিশোরীর পিতা প্রবাসী থাকায় কাউকে না জানিয়ে স্থানীয় পঞ্চায়েত ধামাচাপা দিয়ে বিষয়টি সমাধান করেন।

এ ঘটনায় আইনানুগ ব্যবস্থা নেয়া হচ্ছে বলে জানান গোলাপগঞ্জ মডেল থানা অফিসার ইনচার্জ মিজানুর রহমান।

শেয়ার করুনঃ