প্রেস বিজ্ঞপ্তিঃ যুক্তরাজ্যের রেডব্রীজ কাউন্সিলের অপরাধ, জননিরাপত্তা এবং কমিউনিটি শৃংখলার জন্য কেবিনেট সদস্য নির্বাচিত হয়েছেন গোলাপগঞ্জ পৌরসভার সরস্বতী বড়বাড়ী গ্রামের নেওয়াজ উদ্দিন চৌধুরীর বড় ছেলে কাউন্সিলর খায়ের চৌধুরী। মর্যাদার দিক দিয়ে তিনি এখন যুক্তরাজ্যের স্বরাষ্ট্রসচিবের সমান সুযোগ সুবিধা ও প্রটোকল ভোগ করবেন। এর আগে খায়ের চৌধুরী ২৪ বছর বয়সে রেডব্রীজ সিটির ভ্যালেন্টাইন ওয়ার্ডের কাউন্সিলর নির্বাচিত হন।

কাউন্সিলর খায়ের চৌধুরী জানান, ”একটি চ্যালেঞ্জিং সময়ে এই দায়ীত্ব গ্রহন করেছি। আমরা মহামারী করোনা ভাইরাসের মধ্যে রয়েছি যা প্রতিদিন মানুষকে হত্যা করে চলেছে।”

মিষ্টার খায়ের বলেন, ”আমি সর্বোচ্চ চেষ্টা করব আমার কাউন্সিলের এলাকার লোকজনকে অপরাধ ও ভাইরাস থেকে রক্ষায় কাজ করতে। রেডব্রীজের পুলিশ এবং আমাদের প্রতিনিধি দলের সাথে আমি কাজ করে রেডব্রীজের নাগরিকদের সেবা দিয়ে যাচ্ছি।”

মিষ্টার চৌধুরী আরো বলেন, ”ভ্যালেন্টাইনস ওয়ার্ড তথা আমার নির্বাচনী এলাকার ভোটারদের ধন্যবাদ জানাতে চাই যারা ২০১৪ সালে যখন আমার বয়স ছিল মাত্র ২৪ বছর আমাকে তাদের প্রতিনিধিত্ব করার জন্য নির্বাচিত করেছিলেন। যে ভোটাররা আমাদের দলকে ক্ষমতায় এনেছে আমি তাদের নিকট সর্বদা কৃতজ্ঞ থাকব।”

এদিকে গোলাপগঞ্জ সাংবাদিক কল্যাণ সমিতির সভাপতি মাহবুবুর রহমান চৌধুরীর চাচাতো ভাই কাউন্সিলর খায়ের চৌধুরী যুক্তারাজ্যের রেডব্রীজ কাউন্সিলের কেবিনেট সদস্য নির্বাচিত হওয়ায় অভিনন্দন জানিয়েছেন গোলাপগঞ্জ পৌরসভার মেয়র আমিনুল ইসলাম রাবেল। গোলাপগঞ্জ অনলাইন প্রেসক্লাবের পক্ষে সভাপতি এম. আব্দুল জলিল, সাধারন সম্পাদক জাহিদ উদ্দন। গোলাপগঞ্জ সাংবাদিক কল্যাণ সমিতির পক্ষে অভিনন্দন জানিয়েছেন সভাপতি মাহবুবুর রহমান চৌধুরী, ভারপ্রাপ্ত সাধারন সম্পাদক ফখরুল ইসলাম শাকিল, কোষাধ্যক্ষ জাবেদ মাহবুব। গোলাপগঞ্জ প্রেসক্লাবের পক্ষে অভিনন্দন জানিয়েছেন সভাপতি আব্দুল আহাদ, সাধারন সম্পাদক মাহফুজ আহমদ চৌধুরী।
গোলাপগঞ্জ পৌর প্রেসক্লাবের পক্ষে সেক্রেটারি আব্দুল আজিজ, কোষাধ্যক্ষ ফাহাদ হোসাইন, গোলাপগঞ্জ বাজার বণিক সমিতির পক্ষে সভাপতি আলেকুজ্জ্বামান আলেক, সাধারন সম্পাদক আব্দুল আহাদ, কোষাধ্যক্ষ মাহবুবুর রহমান চৌধুরী সহ আরো অনেকে।

শেয়ার করুনঃ